Home আইন-আদালত পেশা চুরি আর ছিনতাই, পকেট মারতেই ওরা হজে যায়!

পেশা চুরি আর ছিনতাই, পকেট মারতেই ওরা হজে যায়!

 

ঢাকা: দেশে তাদের পেশা চুরি আর ছিনতাই। তবে হজের মৌসুম এলেই দুই মাসের জন্য সৌদি আরবে পাড়ি জমায় তারা। তবে উদ্দেশ্য হজ পালন নয়। বিভিন্ন দেশ থেকে আসা হাজীদের ডলার, পাউন্ড হাতিয়ে নেওয়াই হল তাদের মূল লক্ষ্য।

শনিবার (২৭ জুলাই) রাজধানীর বিমানবন্দর এলাকা থেকে এমন একটি চক্রের ৬ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি উত্তর)। গোয়েন্দাদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদেই মিলেছে এসব তথ্য।

সোমবার (২৯ জুলাই) ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) মহরম আলী সারাবাংলাকে এসব তথ্য জানিয়েছেন।

গ্রেফতার ছয় জন হলেন— সুমন ভুইয়া ওরফে সোমা (৩৬), মাসুদুল হক ওরফে আপেল (৪২), রুহুল কুদ্দুস (৪৮), লাবু মিয়া (৩২), জাহিদুল ইসলাম ওরফে জাহিদ (২৮), দুলাল মোল্লা (৫০)। তাদের জিজ্ঞাসাবাদে চক্রের পলাতক ৬ জনের নাম পাওয়া গেছে। চক্রের পলাতক সদস্যরা হলো- সজিব (৩০), ওমর (৩২), শহিদুল্লাহ (৩০), তাজু (৩৫), তুলু (৩৬) ও জামাল। তাদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে বলে জানিয়েছে ডিবি।
বিজ্ঞাপন

বিমানবন্দর এলাকা থেকে গ্রেফতার ছিনতাই চক্রের ছয় সদস্য

উপ-কমিশনার মহরম আলী সারাবাংলাকে জানান, চক্রটি রাজধানীতে বিশেষ করে বিমানবন্দরে আসা যাত্রীদের আত্মীয়-স্বজনদের টার্গেট করে চুরি, ছিনতাই ও পকেট মারতো। দেশে ১০ মাস চুরি-ছিনতাই করলেও হজের সময় এলেই আড়াই থেকে তিন লাখ টাকা খরচ করে সৌদি চলে যায়। ২০১৩ সাল পর্যন্ত প্রতিবছরই তারা দুই মাসের জন্য সৌদি আরবে যাওয়ার বিষয়টি স্বীকার করেছে। এ বছরও তারা সৌদি আরবে যাওয়ার চেষ্টা করছিল। দলটির মূল হোতা আপেলের নেতৃত্বে ১২ জনের সংঘবদ্ধ চক্রের প্রত্যেক সদস্যের পাসপোর্ট রয়েছে। হজে গিয়ে হাজীদের পকেট কেটে প্রত্যেকে ১০ থেকে ১৫ লাখ টাকা নিয়ে দেশে ফিরে আসে।

তিনি আরও জানান, এর আগে ২০০৮ সালে ২৪ লাখ টাকা সমমূল্যের বিদেশি মুদ্রাসহ সৌদি পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয় চক্রের মূলহোতা মাসুদুল হক ওরফে আপেল। তিন মাস জেল খেটে বের হয়ে দেশে ফিরে সে তৈরি করে নতুন পাসপোর্ট। হজের সময় এলেই আবার সৌদি চলে যায় সংঘবদ্ধ চক্রের এই সদস্যরা।

ডিবি কর্মকতারা জানান, শনিবার বিমানন্দর থানার গোল চত্বর এলাকার ফুটওভার ব্রিজ এলাকা থেকে চক্রের ৬ সদস্যকে গ্রেফতার করে ডিবি। এসময় পকেট কাটার ব্লেড ও চেতনাশক বিভিন্ন ওষুধ উদ্ধার করা হয়।

ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (উত্তর) উপ-কমিশনার মশিউর রহমান বলেন, ‘সরল বিশ্বাস বলতে কোন বিশ্বাস নাই। যেখানে টাকা কিংবা স্বার্থের বিষয় থাকে, সেখানে মানুষকে সতর্ক থাকা উচিৎ। বিশেষ করে ঢিলেঢালা পোশাক পড়লে সবাইকে বেশি সতর্ক থাকা উচিৎ। এই প্রতারকরা হজ, ঈদ এলেই সক্রিয় হয়ে ওঠে।’

এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে বিমানবন্দর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Must Read

৯ সাংবাদিক নিষিদ্ধ কঙ্গনার সঙ্গে অশোভন আচরণের দায়ে

দ্যা নিউজ বিডি,বিনোদন ডেস্ক: বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রনৌতের সঙ্গে অশোভন আচরণের দায়ে ৯ সাংবাদিককে নিষিদ্ধ করেছে ভারতের বেসরকারি বিমান সংস্থা ইন্ডিগো। একই ফ্লাইটে কঙ্গনার সঙ্গে ছিলেন অভিযুক্ত...

নাজমুল একাদশকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন মাহমুদউল্লাহ একাদশ

দ্যা নিউজ বিডি,স্পোর্টস ডেস্ক: বোলাররা জয়ের ভিত তৈরি করে দিয়েছিলেন। যে শক্ত জমিনে দাঁড়িয়ে ব্যাটসম্যানরাও আলো কাড়লেন। ফাইনালকে একরকম এক তরফা করে নাজমুল একাদশকে...

পাঁচ বছরের শিশুকে ধর্ষণ ৬০ বছরের বৃদ্ধ

দ্যা নিউজ বিডি, নিজস্ব প্রতিবেদক:  নেত্রকোনা পৌরসভার কাটলী খালপাড় এলাকায় পাঁচ বছর বয়সী এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে ৬০ বছরের বৃদ্ধ তাহের মিয়ার বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় শিশুটির মা...

স্বাস্থ্যবিধি মেনেই পূজায় অঞ্জলি দিয়েছে মিমি

দ্যা নিউজ বিডি,বিনোদন ডেস্ক: টলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ও তৃণমূল সাংসদ মিমি চক্রবর্তী কসবায় নিজ আবাসনে পূজার অষ্টমীর অঞ্জলি দিয়েছেন। সন্ধিপূজার সময়ও এ অভিনেত্রী ছিলেন। সকল বিধি নিষেধ মেনেই...

বর্তমানে গাঁজা নিয়ে ধর্ম সঙ্কটে ভারত

দ্যা নিউজ বিডি,আন্তর্জাতিক ডেস্ক: গেল সেপ্টেম্বরে ভারতীয় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ ব্যুরো (এনসিবি) এবং অন্যান্য আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলো যখন বলিউড অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তীকে তার প্রেমিক জুনে আত্মহত্যা করা প্রখ্যাত অভিনেতা...